Recents in Beach

Google Play App

ডায়াবেটিক হাসপাতালের জমি অধিগ্রহণে মেয়রের সহায়তার প্রতিশ্রুতি

মোহাম্মদ এরশাদঃ
 চট্টগ্রাম ডায়াবেটিক জেনারেল হাসপাতালের নিজস্ব কোন ভূমি নেই।  এখনো পর্যন্ত ব্যক্তি মালিকানাধীন ভবনের মধ্যেই চিকিৎসা সেবা প্রদান করে যাচ্ছে। ভূমি অধিগ্রহণের আবেদন নিয়ে  ইতোপূর্বে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ গণপূর্ত মন্ত্রনালয়ে যোগাযোগ করেছে। মন্ত্রণালয় হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে এ ব্যাপারে সহায়তার আশ্বাস  দিয়েছিল। কিন্তু নানামুখী প্রতিবন্ধকতার কারণে আজ পর্যন্ত ডায়াবেটিক হাসপাতালের নিজস্ব ভূমি বন্দোবস্ত করা যায় নি।সরকারের নতুন মেয়াদে এবার ডায়াবেটিক হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ ভূমির ব্যাপারে আবার প্রচেষ্টা শুরু করেছে। চট্টগ্রামের সমাজ হিতৈষী, দানশীল,রাজনৈতিকসহ সর্বস্তরের সহযোগিতা ভিত্তিতে এই প্রক্রিয়া বাস্তবায়নের প্রত্যাশা করছে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ।
 আজ  বিশ্ব ডায়াবেটিস সচেতনতা দিবসের অনুষ্ঠানে এসে সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দিনও হাসপাতালের ভূমি অধিগ্রহণ কার্যক্রমে সহায়তার প্রতিশ্রুতি দিলেন।
বক্তব্যে  তিনি চট্টগ্রাম অঞ্চলের রোগীদের সেবা প্রদানে ডায়াবেটিক হাসপাতালের অনন্য ভূমিকার কথা তুলে ধরেন।    তিনি আরো বলেন, এই হাসপাতালে আসা রোগীদের জন্য  ৩৫ লাখ টাকা  ব্যয়ে একটি ওয়াকওয়ে নির্মান করা হয়েছে। হাসপাতালের জন্য ভূমি অধিগ্রহণের ক্ষেত্রেও আমার পক্ষ থেকে সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে। মানব সেবায় অংশগ্রহণ করা ছদকায়ে জারিয়া।
অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রিজের সভাপতি  মাহবুবুল হক। এস এম শওকত হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে ডায়াবেটিক জেনারেল হাসপাতাল পরিচালনা পরিষদ সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ মো জাহাঙ্গীর চৌধুরী, পুষ্টিবিদ হাসিনা আকতার লিপি বক্তব্য রাখেন। এসময় পরিচালনা পরিষদের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শাহনেওয়াজ, জাবেদ আকতার,এড. চন্দন তালুকদার, প্রকৌশলী জয়সেন বড়ুয়া সহ সংশ্লিষ্টরা উপস্থিত ছিলেন।
বিশ্ব ডায়াবেটিস সচেতনতা দিবসকে সামনে রেখে দুইশ জন ডায়াবেটিস আক্রান্তকে আদর্শ রোগী হিসেবে নির্বাচিত করা হয়েছে।অনুষ্ঠানে ড্র প্রক্রিয়ায় বাছাইকৃত ছয়জনকে আদর্শ রোগীর সম্মাননা প্রদান করা হয়। এরা হলেন- রাজিয়া সুলতানা,মোর্শেদা বেগম,শাহজাহান পাটোয়ারী, অজয় পাল,মো আবু সাইয়েদ ও এড. নাসিমা আক্তার।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য