Recents in Beach

Google Play App

জনগণের নিরাপত্তার বিষয় চিন্তা করে ঘরে ঘরে গিয়ে খাদ্য সরবরাহ।

বাঁশখালী উপজেলার ৩নং খানখানাবাদ ইউনিয়নে নোবেল করোনায় লকডাউন থাকা ক্ষতিগ্রস্থ দিন, মজুর, কৃষক নিম্ন আয়ের মানুষ ও সনাতন ধর্মালম্বীর মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরন করেন খানখানাবাদ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম‌্যান জনাব মুহাম্মদ বদরুদ্দীন চৌধুরী।

সোমবার ৩০ মার্চ ও মঙ্গলবার ৩১ মার্চ সকাল ১০ঘটিকা থেকে অত্র ইউনিয়ন বিভিন্ন এলাকায় করোনা ভাইরাসের আতংকে থাকা হতদরিদ্র অসচ্ছল পরিবারের মধ্যে থেকে ৫০০ জন কে মানবিক তহবিল থেকে তাদের নিজ নিজ বাড়ি গিয়ে চাল, ডাল, তেল, সাবান, পিয়াজ ইত্যাদি বিতরন করেন ৩নং খানখানাবাদ  ইউনিয়নের চেয়ারম্যান বদরুদ্দীন।
এ প্রসঙ্গে খানখানাবাদ ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম‌্যান জনাব মুহাম্মদ বদরুদ্দীন বলেন” মহামারি করোনা আতংকে বিশ্ব সহ আমাদের দেশেও এর প্রাদুর্ভাব সমাজের প্রান্তিক জনগোষ্ঠিসহ মধ্যবিত্ত পরিবারে অভাব অনটন দেখা দিয়েছে। এমন দুর্দিনে অসহায়দের পাশে সমাজে খাদ্য হাহাকার দেখার আগেই সমাজের বিত্তবান ও সাবলম্বী ব্যক্তিদের এগিয়ে আসা উচিৎ। এ লড়াই মানবতার লড়াই। এ লড়াইয়ে সবাইকে সামিল হতে হবে। প্রধানমন্ত্রীর এ উদ‌্যোগ নোবেল করোনায় লকডাউন হওয়া নিম্ন আয়ের দিন মজুর, কৃষক খেটে খাওয়া মানুষের জন‌্য বরাদ্দ করেছেন সরকার । আমরা এ খাদ্য সকল অসহায় দিন মজুর, কৃষক, হত-দরিদ্র মানুষ ও সনাতন ধর্মালম্বীদের মাঝে পর্যায়ক্রমে বিতরন করব।
চট্টগ্রাম ১৬ বাঁশখালী আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব মোস্তাফিজুর রহমান চৌধুরী এমপি আমার খানখানাবাদের হতদরিদ্র মানুষের সার্বক্ষনিক খোঁজ খবর নিচ্ছেন এবং আমাকে দিকনির্দেশনা প্রদান করছেন।

চেয়ারম‌্যান মুহাম্মদ বদরুদ্দীন চৌধুরী আরো বলেন, “নোবেল করোনায় বাঁশখালী উপজেলা লকডাউন ঘোষনা করার কারণে নিম্ন আয়ের মানুষ যাতে খাবারের অভাবে ঘর থেকে বের না হয় তজ্জন্য তাদের মাঝে সুষ্ঠুভাবে খাদ্য পৌঁছে দিতে দিক নির্দেশনা দিয়েছেন উপেজলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোমেনা অাক্তার। তিনি অারো বলেন আমার খানখানাবাদ ইউনিয়নে কোন মানুষ অনাহারে থাকবেনা, ইনশাআল্লাহ! আমি খানখানাবাদ ইউনিয়নের বিত্তশালীদের আবারও আহবান করব আপনারা মানবিক বিবেচনায় করোনায় ক্ষতিগ্রস্থদের পাশে এসে সহায়তার হাত বাড়িয়ে দিন”।
এসময় উপস্থিত থেকে প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষ ভাবে সহায়তা করেন বিশেষ করে ছাত্রলীগ, যুবলীগ ও আওয়ামীলীগের নেতা কর্মীরা ঘরে ঘরে গিয়ে খাবার পৌছায় দিচ্ছে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য