Recents in Beach

Google Play App

বাঁশখালীতে পুকুরে বিষ প্রয়োগ করে ৬ লক্ষ টাকার মাছ নিধন ।

নিজস্ব সংবাদদাতাঃ                    চট্টগ্রাম বাঁশখালী উপজেলায় দুর্বৃত্তরা একটি পুকুরে বিষ প্রয়োগ করার ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় প্রায় ৬,৮৬,০০০ হাজার টাকার মাছ মারা গেছে। মঙ্গলবার (১ অক্টোবর) দিবাগত রাতে এ ঘটনা ঘটে। এলাকাবাসী ও ইজারাদরের নিয়োগ কৃত কাজী মোঃ ইউসুফ, মোঃ জাকের, সাহেদ এমরান শহীদ, জানায়,বাহার ছাড়া ইউনিয়নের,আমাদের ইলশা গ্রামের সরকারি একটি খাঁস পুকর ৮, ৫২০০০ হাজার টাকা দিয়ে ৩ বছরের জন্য মৎস্যজীবী সমবায় সমিতির কাছ থেকে লিজ নেয়। ৪,০২০০০ হাজার টাকা ব্যয়ে ওই পুকুরে প্রায় দুই ১৫মন তেলাপিয়া ও কাতলা পোনা মাছের চাষ করে। মঙ্গলবার রাতে কে বা কারা পুকুরটিতে বিষ প্রয়োগ করে। সকালে সব মাছের পোনা মরে ভেসে ওঠে।
পুকুরটির ইজারাদার ও মৎস্য ব্যবসায়ী মো: আমির হোসেন জনান, ‘এত বড় সর্বনাশ কে করল আল্লাহই জানেন। আমি পথে বসে গেলাম।’ ২/৩ মাস পর মাছগুলো বিক্রি করলে সব টাকা উঠে আসত। শত্রুতাবশত কেউ এ ঘটনা ঘটিয়েছে বলে ধারণা করেন তিনি। এ পর্যন্ত তার হিসাব অনুযায়ী দুর্বৃত্তরা পুকুরের ১ বছরের লাগিয়ত সহ ৬,৮৬ ০০০,হাজার টাকার মাছ মেরে ফেলেছে। তিনি আরও বলেন মাছের পোনা কোন পানির সমস্যায় মরলো কিনা পরিক্ষা করতে ১ লিটার পানি ও মরা মাছের পোনা উপজেলা মৎস্য অফিসারের কাছে নিয়ে গেলে মৎস্য অফিসার পানি পরিক্ষা করে কোনো দোষ পাওয়া যায়নি বলে জানান।
বাঁশখালী উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা মাহবুবুর রহমান বলেন, পুকুরের পানি পরিক্ষা করে পানিতে কোন ধরনের সমস্যা পাওয়া যায়নি। তবে প্রাথমিক ভাবে ধারনা করা হচ্ছে পুকুরে বিষ প্রয়োগ করা হয়েছে। এই বিষয়ে ইজারাদার আমির হোসেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে তদন্ত পূর্বক ব্যবস্হা নেওয়ার জন্য একটি অভিযোগ দায়ের করছেন, যার কপি নিউজে এড করা হয়েছে। এই বিষয়ে স্হানীয় বাহার ছাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান অধ্যাপক তাজুল ইসলামের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ইজারাদার আমাকে জানানোর পর আমি সরজমিনে পুকুরে গিয়ে দেখলাম পুকুরের সম্পুর্ণ  মাছের পোনা মরে বেসে উঠেছে বলে তিনি জানান।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য