Recents in Beach

Google Play App

মেয়েকে বাঁচাতে গিয়ে আগুনে পুড়ে মরলেন মা



বি,এন ডেস্কঃ
কাজে যাওয়ার আগে রান্না করতে গ্যাসের চুলা জ্বালানোর সঙ্গে সঙ্গে আগুন ধরে যায় সেলিনা আক্তার (২৫) নামের এক কারখানা শ্রমিকের ঘরে। বিকট শব্দে গ্যাস সিলিন্ডারটি বিস্ফোরিত হয়। আগুন থেকে মেয়েকে বাঁচাতে গিয়ে অগ্নিদগ্ধ হয়ে মারা যান তিনি। আজ মঙ্গলবার ভোর পাঁচটার দিকে গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার গিলারচালা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।
প্রত্যক্ষদর্শী সাদিক ইসলাম বলেন, সেলিনা সিরাজগঞ্জের কামারখন্দ থানার রায় দৌলতপুর ইউনিয়নের দৌলতপুর গ্রামের নুরুল ইসলামের মেয়ে। সেলিনা স্থানীয় একটি জুতার কারখানায় চাকরি করতেন। স্থানীয় শহীদুল ইসলামের বাড়িতে একটি কক্ষে তাঁর মেয়ে জান্নাত তামিমকে (৯) নিয়ে থাকতেন। এই প্রত্যক্ষদর্শীর দাবি, চুলায় আগুন জ্বালাতে গিয়ে হঠাৎ অগ্নিকাণ্ড ঘটে। মুহূর্তের মধ্যেই সিলিন্ডারটি বিস্ফোরিত হয়। এতে আগুনের তীব্রতা বেড়ে যায়। ঘরে থাকা মেয়েকে আনতে যান মা। মেয়েকে বের করতে সক্ষম হলেও আগুনে পুড়ে ঘটনাস্থলেই মায়ের মৃত্যু হয়। সিলিন্ডারটি বিস্ফোরিত হয়ে পাশের বাড়ির দেয়ালে আঘাত করে। পরে এই আগুন পুরো বাড়িতে ছড়িয়ে পড়লে ফায়ার সার্ভিস গিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে নেয়। এর আগেই বাড়ির ছয়টি ঘর পুড়ে যায়।শ্রীপুর ফায়ার সার্ভিসের দায়িত্বরত কর্মকর্তা টেলিফোনে প্রথম আলোকে বলেন, তাদের দুটি ইউনিট ঘটনাস্থলে গিয়ে আগুন নেভায়।
শ্রীপুর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) আহসানুজ্জামান প্রথম আলোকে বলেন, সিলিন্ডারটির পেটের দিকে ছিদ্র ছিল বলে মনে হচ্ছে। ধারণা করা হচ্ছে, এটি মেয়াদ উত্তীর্ণ ছিল। আগুন লেগে যাওয়ার পর সেলিনা তার মেয়েকে ঘর থেকে বের করে দিয়ে নিজে আগুনে আটকা পড়ে মারা গেছেন। লাশ থানায় রাখা হয়েছে।
সুত্রঃ প্রথম আলো

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য