Recents in Beach

Google Play App

পৃথিবীর মানচিত্র থেকে পাকিস্তানকে মুছে ফেলার হুঁশিয়ারি ভারতীয় সেনার

প্রথমে ঠিক ছিল জোট করবেন না। কিন্তু অস্তিত্ব টিকিয়ে রাখতে অভিমান ভেঙে শেষমেষ জোটের আঙিনাতেই পা রাখতে হল। লোকসভার প্যাঁচে খুলতেই হল অভিমান জট। শেষ পর্যন্ত জোট করলেন বিজেপি ও শিব সেনা। জোটের আগেই অবশ্য পুলওয়ামার ঘটনায় মোদীর প্রতিশোধ নিতে চাওয়ার বিষয়টিকে সমর্থন জানিয়েছিলেন অখিলেশ। জোটের পর তো কথাই নেই। গলা ছেড়ে মোদীর গুণগান গাইলেন শিবসেনা প্রধান। এ খবর দিয়েছে ভারতীয় গণমাধ্যম কলকাতা২৪।
বললেন, পৃথিবীতে কছুতেই শান্তি ফিরবে না যদি পাকিস্তানকে পৃথিবীর মানচিত্র থেকে নিশ্চিহ্ন করে না ফেলা যায়। পাকিস্তান শুধু মাত্র ভারতের জন্য নয়, সমগ্র পৃথিবীর জন্যই ক্ষতিকর। পাকিস্তানের ওপর ভারতীয় বায়ু সেনার হামলাটি নিঃসন্দেহে প্রশংসনীয়।
দলের মুখপত্র সামনায় বলা হয়েছে, এই হামলাটি ভারতীয় বায়ু সেনার গভীর দেশাত্ববোধের প্রতীক। মুখপত্রের একটি সম্পাদকীয় পত্রে বলা হয়েছে, পাকিস্তানও এই হামলার যোগ্য জবাব দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছে। মঙ্গলবার ভোররাতে পাক অধিকৃত কাশ্মীরে হামলা চালিয়েছে ভারতীয় বায়ু সেনা।
১০০০ টি বোমা নিক্ষেপ করে জইশ ই মহম্মদের প্রধান প্রশিক্ষণ শিবিরটিকেই গুঁড়িয়ে দিয়েছে তাঁরা। দেশ জুড়ে পুলওয়ামার ঘটনায় ক্ষোভের সঞ্চার হয়েছে। দেশের মানুষ প্রতিশোধের আগুনে ফুঁসছিলেন। লাদেনের মত মাসুদকেও দেশ থেকে উৎখাত করা দরকার। প্রতিশোধ এখনও বাকি রয়েছে।
পৃথিবীর মানচিত্র থেকে পাকিস্তানকে মোছা না গেলে শান্তি ফিরবে না। পাকিস্তান শুধু মাত্র ভারতের জন্য নয়, সমগ্র পৃথিবীর জন্যই ক্ষতিকর। পাকিস্তানে কোন রকম গনতন্ত্র নেই। জোটবন্ধু মোদীর প্রশংসা করে বলেছেন, প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বেই দেশের সেনা তাদের সমস্ত অধিকার ব্যবহার করছে। পাক – ভারতের এই যুদ্ধ ৭০ বছর
ধরে চলছে। ইন্দিরা গান্ধী সামরিক অভিযান চালিয়ে দুই দেশকে বিচ্ছিন্ন করেছিলেন। সরাসরি ব্যবস্থা নিতেই বিশ্বাসী ছিলেন তিনি। সামরিক অভিযান চালিয়ে তিনি পাকিস্তানের হাঁটু ভেঙে দিয়েছিলেন। নরেন্দ্র মোদীও তাই করলেন।
বিডি২৪লাইভ/এমআর

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য